জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন গ্রেডিং পদ্ধতি সংক্রান্ত তথ্য

0
698
জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রেডিং পদ্ধতিতে সম্পর্কে আমরা অনেকেই অবগত নই। কিন্তু যখন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় হতে অর্নাস এর পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণা করা হয় তখন দেখা যায় গ্রেডিং পদ্ধতি সম্পর্কে জানতে ফলাফল প্রার্থীরা দিক-বেদিক ছোটাছুটি শুরু করে। তাই আজকের পোষ্টে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রেডিং পদ্ধতিতে সম্পর্কে সঠিক তথ্য প্রদান করার চেষ্ঠা করব।জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের মঞ্জুরি কমিশনন কর্তৃক প্রদত্ত অভিন্ন গ্রেডিং অনুযায়ী গাণিতিক নম্বর, লেটার মার্ক, ও গ্রেডিং পয়েন্ট দেওয়া হল।

দ্রুত রেজাল্ট পেতে আপনার রোল নম্বর ফেসবুক পেইজ ইনবক্স / গ্রুপে শেয়ার করে  দিন

আমাদের সাথে যুক্ত হতে চাইলৈ : ফেসবুক পেইজ | | ফেসবুক গ্রুপ

বিশ্ববিদ্যালয় গ্রেডিং পদ্ধতি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন গ্রেডিং পদ্ধতি

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রেডিং পদ্ধতি

উত্তরপত্র নম্বরের ভিত্তিতে মূল্যায়ন করা হবে। একজন পরীক্ষার্থীর তত্ত্বীয়, ব্যবহারিক ও মৌখিক পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরকে লেটার গ্রেড ও গ্রেড পয়েন্ট রুপান্তর করা হবে। পরীক্ষার্থীর ফলাফল মূল্যায়নের জন্য নিম্নলিখিতদ লেটার গ্রেড ও সংশ্লিষ্ট গ্রেড পয়েন্ট থাকবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের মঞ্জুরী কমিশন কর্তৃক প্রদত্ত অভিন্ন গ্রেডিং পদ্ধতি অনুযায়ী গাণিতিক নম্বর, লেটার গ্রেড ও গ্রেড পয়েন্ট হবে নিম্নরুপ।
Numoral Grade
Letter Grade(LG)
Grade Point(GP)
80% or above
A+
4.00
75% to less than 80%
A
3.75
70% to less than 75%
A-
3.50
65% to less than 70%
B+
3.25
60% to less than 65%
B
3.00
55% to less than 60%
B
2.75
50% to less than 55%
C+
2.50
45% to less than 50%
C
2.25
40% to less than 45%
D
2.00
<40% (less than 40%)
F
0.00

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশ নম্বর

কোর্সের নম্বর
১০০ (৪ ক্রেডিট)
৫০ (২ ক্রেডিট)
পাশ নম্বর
৪০
২০
গ্রণনযোগ্য ক্রেডিট
D
D

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উত্তীর্ণ গ্রেড

ছাত্র-ছাত্রীদের সকল নির্ধারিত কোর্সে এবং মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ বাধ্যাতমূলক। ছাত্র-ছাত্রীদের সকল নির্ধারিত কোর্সে ও মৌখিক পরীক্ষার ৪০% বা D গ্রেড বা গ্রেড পয়েন্ট ২ পেয়ে পাশ করতে হবে। যে সকল কোর্সে D গ্রেড বা গ্রেড পয়েন্ট ২ পেয়ে পাশ করতে হবে। যে সকল কোর্সে D বা তদূর্ধ্ব গ্রেড অর্জিত হবে শুধুমাত্র সে কোর্সগুলোর ক্রেডিট ফলাফলের গণনায় আনা হবে। Non-credit ইংরেজী বিষয়ের প্রাপ্ত গ্রেড GPA গণনায় নেয়া হবে না।

জিপিএ (GPA) এবং সিজিপিএ (CGPA) নির্ণয়

নির্দিষ্ট কোর্সে প্রাপ্ত গ্রেড পয়েন্টকে উক্ত কোর্সের ক্রেডিট দ্বারা গুণ করে এ কোর্সে অর্জিত পয়েন্ট নির্ধারণ করা হবে। উক্ত বছরে সকল কোর্সে অর্জিত মোট পয়েন্টকে মোট অর্জিত ক্রেডিট দ্বারা ভাগ করে এক বছরের জিপিত্র নিরপণ করা হবে। এভাবে সকল বছরে অর্জিত মোট পয়েন্ট সমূহকে যোগ করে সর্বমোট অর্জিত ক্রেডিট দ্বারা ভাগ করে সিজিপিএ নির্ধারণ করা হবে।D এর নীচে প্রাপ্ত গ্রেডের জন্য কোন ক্রেডিট অর্জিত হবে না এবং তা F (Fail) গ্রেড বলে বিবেচিত হবে ।F গ্রেড থেকে উচ্চতর গ্রেডে উন্নীত হলে অর্জিত CGPA ক্রেডিট গণনায় যুক্ত হবে।F গ্রেড উচ্চতর গ্রেডে উন্নীত করলে পরবর্তীতে মানোন্নয়নের আর সুযোগ থাকবে না।

GPA  জিপিএ গণনার পদ্ধতি :

সিজিপিএ গণনার পদ্ধতি
জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রেডিং পদ্ধতি
Example : Grade Point Average (GPA) Calculation for a year
Course
Code No
No.of
Credits
Marks Obtained
(%)
Letters
Grade (LG)
Earned Grade
Points (EGP)
Earned Point Secured (EPS)=No of Credits X Grade Point
2011
4
70
A-
3.50
14.00
2012
4
65
B+
3.25
13.00
2013
4
60
B
3.00
12.00
2014
4
34
F
0.00
00.00
2015
4
55
B-
2.75
11.00
2016
2
50
C+
2.50
05.00
2017
4
45
C
2.25
09.00
Total
26
64.00
Total Point Secured (TPS ) = 64
Earned Credit (EC)=22(4+4+4+0+4+2+4=22)
SGPA = TPS/EC =64/22=2.90

CGPA  সিজিপিএ গণনার পদ্ধতি

সিজিপিএ গণনার পদ্ধতি
জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিজিপিএ গণনার পদ্ধতি

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রমোশন (১ম বর্ষ হতে ৪র্থ বর্ষে নীতিমালা)

ক) গ্রেডিং পদ্ধতির সম্মনান পরীক্ষায় BA,BSS,এবং BSC এর ক্ষেত্রে ১ম বর্ষ থেকে ২য় বর্ষে প্রমোশনের জন্য কমপক্ষে ৩টি তত্ত্বীয় কোর্সে নূন্যত্তম D গ্রেড পেতে হবে।  ২য় বর্ষ থেকে ৩য় বর্ষ নূন্যতম ৩টি তত্ত্বীয় কোর্সে D গ্রেড পেতে হবে। ৩য় বর্ষ থেকে ৪র্থ বর্ষে প্রমোশনের জন্য ন্যূনতম ৪টি তত্ত্বীয় কোর্সে D গ্রেড পেতে হবে।
খ) একজন শিক্ষার্থী কোন বর্ষে ক উপাধারায় উলে-খিত তত্ত্বীয় কোর্সে প্রমোশনের জন্য ন্যূনতম গ্রেড অর্জনে ব্যর্থ হলে সে Not Promoted হবে। পরবর্তী বছরে অনুষ্ঠিত উক্ত বর্ষের পরীক্ষায় শিক্ষার্থীকে পূর্ববর্তী বছরের পাসকৃত তত্ত্বীয় কোর্সের পরীক্ষা দিতে হবে না। এতকই বর্ষে পর পর অনুষ্ঠিত দু বছরের প্রাপ্ত ফলাফল ক- উপধারার শর্ত পূরণ করলে একজন শিক্ষার্থী পরবর্তী বষে প্রমোশন পাবে। তবে F গ্রেড কে উচ্চতর গ্রেডে উন্নিত করলে সেক্ষেত্রে মানোন্নয়ের সুযোগ থাকবে না।
গ) ১টি কোর্সে অনুপস্থিত থেকে শিক্ষার্থী অন্যান্য সকল কোর্সে পরীক্ষা দিয়ে সে সব কোর্সে নূন্যপক্ষে D গ্রেড পেলে পরবর্তী বর্ষে প্রমোশন পাবে। পরবর্তী বছরে পরীক্ষার্থীদের সঙ্গে তাকে অনুপস্থিত বিষয়ে অবশ্যই পরীক্ষা দিতে হবে।
ঘ) একজন শিক্ষার্থী ক উপধারার শর্ত পূলণ সাপেক্ষে ১ম বর্স থেকে ২য় বর্ষে প্রমোশন পাবে ২য় বর্ষে অধ্যয়নরত অবস্থায় ১ম বর্ষের F গ্রেড সমূহকে উচ্চতর গ্রেডে উন্নীত করার সুযোগ পাবে। তবে ২য় বর্ষের পরীক্ষায় প্রমোশনের জন্য ক উপধারার ন্যূনতম শর্তপূরণ করতে হবে। উক্ত শর্তপূরণে ব্যর্থ হলে ৩য় বর্ষে প্রমোশন পাবে না। একইভাবে ৩য় বর্ষে অধ্যয়নরত অবস্থায় প্রযোজ্য ক্ষেত্রে শিক্ষার্থী ১ম ও ২য় বর্ষের F গ্রেড সমূহকে উচ্চতর গ্রেডে উন্নীত করার সুযোগ পাবে। তবে ৩য় বর্ষের পরীক্ষায় প্রমোশনের জন্য ক উপধারার ন্যূনতম শর্তপূরণ করতে হবে।উক্ত শর্তপূরণে সে ব্যর্থ হলে ৪র্থ বর্ষে প্রমোশন পাবে না।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রেড উন্নীত করণ

ক) একজন শিক্ষার্থী জিপিএ উন্নীতকরণের জন্য শুধুমাত্র Cগ্রেড বা ২.২৫ এর কম প্রাপ্ত কোর্সে ঠিক পরবর্তী ব্যাচের পরীক্ষার সময় চলতি সিলেবাস অনুযায়ী পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করার সুযোগ পাবে। তবে কোন পরীক্ষার্থী একটি কোর্সে একবারের বেশী গ্রেড উন্নীতকরণের সুযোগ পাবে না। কোন শিক্ষার্থী যদি গ্রেড উন্নীত করতে ব্যর্থ হয় তাহলে ঐ কোর্সে তার পূর্বের গ্রেড বহাল থাকবে। গ্রেড উন্নতিকরণে ক্ষেত্রে ১ম অথবা ২য় বারের পরীক্ষার মধ্যে যে গ্রেড উচ্চতর হবে তা যোগ করা হবে এবং তার ভিত্তিতেই ফলাফল নির্ধারণ করা হবে।
খ) ইন-কোর্স, মৌখিক ও ব্যবহারিক পরীক্ষার গ্রেড উন্নতিকরণ কোন সুযোগ থাকবে না।
গ) বিভাগীয় প্রধান অধ্যক্ষের মাধ্যমে গ্রেড উন্নতিকরণ পরীক্ষায় অংশ গ্রহণচ্ছুক শিক্ষার্থীদের তালিকা ফরম পূরণের শেষ তারিখের পর পরই জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকের কাছে প্রেরণ করবে।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে (CGPA) সিজিপিএ গ্রেডিং পদ্ধতি জেনে রাখুন

1. 100-80 = A+ = 4.00 > 1st Class
2.  79-75 = A  = 3.75 > 1st Class
3.  74-70 = A- = 3.50 > 1st Class
4.  69-65 = B+ = 3.25 > 1st Class
5.  64-60 = B  = 3.00 > 1st Class
6.  59-55 = B- = 2.75 > 2nd Class
7.  54-50 = C+ = 2.50 > 2nd Class
8.  49-45 = C  = 2.25 > 2nd Class
9.  40-44 = D  = 2.00 > 3rd Class 

উপোরক্ত তথ্যগুলোর মধ্যে অনিচ্ছাকৃত কোন প্রকার ভুল পরিলক্ষিত হলে ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখবেন । তথ্যগুলো সম্পূর্ণ্য  সঠিক ও তথ্যবহুল করতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হয়েছে তারপরেও যদি কোন তথ্য আপনার দৃষ্টিতে ভুল, বাদ  অথবা  হালনাগাদ করার প্রয়োজন হলে অবশ্যই নিচের কমেন্ট বক্সে আপনার মতামত, পরামর্শ ও জিজ্ঞাসা জানাতে পারেন। তথ্যটি শেয়ার করার মাধ্যমে অন্যকে জানার সুযোগ করে দেওয়ার অনুরোধ করা হল। 

আমাদের সাথে যুক্ত হতে চাইলৈ : ফেসবুক পেইজ | | ফেসবুক গ্রুপ

পোষ্ট-টি শেয়ার করে অন্যকে জানার সুযোগ করে দিন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার কমেন্ট লিখুন
আপনার নাম লিখুন